খুলনায় ভোটগ্রহণ শেষ, গণনা শুরু খুলনায় ভোটগ্রহণ শেষ, গণনা শুরু - For update barisal news visit barisallive24.com
বরিশাল, ২৪শে মে, ২০১৮ ইং। সর্বশেষ আপডেট: ৪৪ মিনিট আগে
শিরোনাম
গৌরনদীতে পাটজাত পণ্য ব্যবহার না করায় ৩ প্রতিষ্ঠানে জরিমানা বিয়ের ১৫ মিনিট পরই স্ত্রীকে তালাক! নারীদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু ৭ জুলাই বানারীপাড়ায় ভ্রাম্যমান আদালতে দুই মুদি দোকানীকে জরিমানা ও ৩০ মন আম বিনষ্ট ক্যাপ্টেন মোয়াজ্জেম বানারীপাড়ার সলিয়াবাকপুর ফজলুল হক স্কুলের সভাপতি পুর্ননির্বাচিত বানারীপাড়ায় রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি শফিক শাহিন, সম্পাদক সজল চৌধুরী বরিশালে চিংড়ির রেনুসহ আটক ১৪ জনকে জরিমানা বেতন ভাতার দাবিতে শেবাচিম হাসপাতালের কর্মচারীদের মিছিল ও স্মারকলিপি প্রদান রেজিষ্ট্রেশন কার্ড না আসায় জরিমানা ধার্য্য : বরিশালে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন কলাপাড়ায় ইটভটায় হামলা : আহত-৪

বরিশাল লাইভ ডেস্ক


খুলনায় ভোটগ্রহণ শেষ, গণনা শুরু

মে ১৫, ২০১৮ ৪:৫২ অপরাহ্ণ

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে। মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়ে শেষ হয় বিকেল ৪টায়। এখন প্রতিটি কেন্দ্রে শুরু হয়েছে ভোট গণনা।

নির্বাচন কমিশনের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সকাল থেকেই ভোট কেন্দ্রগুলোতে ভোটাররা জড়ো হয়েছিলেন। সারাদিন উৎসবমুখর পরিবেশে শান্তিপূর্ণভাবেই ভোটগ্রহণ হয়েছে।

নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ইউনুচ আলী জানান, সিটির ২৮৯টি কেন্দ্রের মধ্যে তিনটি কেন্দ্রে অনিয়মের কারণে ভোটগ্রহণ স্থগিত হয়েছে। এছাড়াও কয়েকটি কেন্দ্রের-ভেতরে বাইরে গোলযোগ, অনিয়ম, এজেন্টদের বাধা ও নির্বাচনী ক্যাম্প ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে।

৪৫ দশমিক ৬৫ বর্গকিলোমিটারের খুলনা সিটিতে ভোটার ৪ লাখ ৯৩ হাজার ৯৩ জন। ৩১টি ওয়ার্ডে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন পাঁচজন, কাউন্সিলর পদে লড়ছেন ১৩৯ জন। আর সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলরের ১০টি পদে লড়ছেন আরও ৩৯ জন। কেসিসির সর্বশেষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছিল ২০১৩ সালের ১৫ জুন। এদিকে গতকাল হাইকোর্ট সর্বোচ্চ আদালতের নির্দেশনা অমান্য করে খুলনায় গণগ্রেফতার না করার নির্দেশ দিয়েছেন।

রিটার্নিং অফিসারের কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, খুলনা সিটি করপোরেশনে প্রথমবারের মতো মেয়র পদে দলীয় প্রতীকে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। মেয়র পদে যে পাঁচজন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন তারা হলেন- আওয়ামী লীগের তালুকদার আবদুল খালেক (নৌকা), বিএনপির নজরুল ইসলাম মঞ্জু (ধানের শীষ), জাতীয় পার্টির এসএম শফিকুর রহমান (লাঙল), ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের অধ্যক্ষ মাওলানা মুজ্জাম্মিল হক (হাত পাখা) এবং বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি-সিপিবির মিজানুর রহমান বাবু (কাস্তে)।

পাঠকের মতামত:

[wpdevart_facebook_comment facebook_app_id="322584541559673" curent_url="" order_type="social" title_text="" title_text_color="#000000" title_text_font_size="22" title_text_font_famely="monospace" title_text_position="left" width="100%" bg_color="#d4d4d4" animation_effect="random" count_of_comments="3" ]
এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য
TECHNOLOGY: SPIDYSOFT IT GROUP